মৃন্ময় ৭২

তোমার সাথে শুধু একটা রাত কাটাবো
বুকের মধ্যে আগুন অনুভব নিয়ে আবারো তোমার প্রেমে পড়বো!
এক রাতে বুকের উঠোনে জন্ম নেবে সমর্পণের দূর্বাঘাস
বাতাসে ভেসে বেড়াবে সামুদ্রিক গন্ধ, নীলতিথী পেরিয়ে লাল ফুল
চুপিচুপি গাঢ় রাত্রিতে তোমার গা ঘেঁষে শুয়ে
সব ক’টা বোতাম খুলে দেব
কানামাছি দিন শেষে হলুদ উত্তাপে
তোমার বুকে এঁকে দেব একটি চন্দ্রবিন্দু; নত মস্তকে।
ঈশ্বরের কাছ থেকে ধার করে আনা একটা রাত,
তোমার নামে লিখে দেব
নিগূঢ় মমতায় চুলে বিলি কেটে কেটে নিলাম হযে যাবো!
আমাকে বেঁচে দাও কম দামে, নয় চড়া দামে;
যেখানে কেবল তোমার ভালোবাসার দরদাম চলে।
চাল, ডাল, নুন-তেল, উড়ে যাওয়া ঘরের চাল
পড়ে থাকুক সে রাতে নিষিদ্ধ কিনারায়।
শুধু তুমি আর আমি, উড়ে যাওয়া গাঙচিল
তিতাসের জলে জলকেলীতে দু’টি বুনো হাঁস, এক ফালি
চাঁদ বলো, এমন প্রেম তোমায় ছাড়া কি করে হয়?
আমি তোমার সাথে শুধু একটা রাত কাটাবো
সারা জীবনের জন্য একটা রাত কাটাবো!
শরীরি বিলাস নয়, শুধু চেয়ে থাকা তোমার চোখে!
শতজন্মের ক্ষুদা নিয়ে শুধু একটি রাত,
একটি রাত শুধু তোমার চোখে চেয়ে কাটাবো।
আমি তোমার সাথে শুধু একটা রাত কাটাবো!
সারা জীবনের জন্য একটা রাত কাটাবো!
প্রতিটা সময় একসঙ্গে গুটিয়ে থাকা
এক সঙ্গে জীবনকে ভাগ করে নেয়া
অনুভবে এই যে বিশাল জলরাশি
তোমায় ছাড়া কি করে হয়?
হৃদয়ে একটা নির্দিষ্ট কিছু নিয়ে
প্রথমবারের মত নিশ্চিত জানি,
তুমিই সে প্রেম,
যার আকুতিতে অন্ধকার হাতড়ে অর্ধেক জীবন কেটে গেল।